• বিদেশ ডেস্ক
  • ০৯ এপ্রিল ২০২০ ১৩:৪৪:৫৭
  • ০৯ এপ্রিল ২০২০ ১৩:৪৬:৪৬
অন্যকে জানাতে পারেন: Facebook Twitter Google+ LinkedIn Save to Facebook প্রিন্ট করুন
বিজ্ঞাপন

পরিবারের সুরক্ষায় গাড়িতেই বাস এই ‘করোনা যোদ্ধার’

শচীন নায়েক। ছবি : সংবাদ প্রতিদিন থেকে নেয়া

প্রাণঘাতী করোনাভাইরাস মহামারীর আসল যোদ্ধা হলেন স্বাস্থ্যকর্মী ও চিকিৎসকরা। কারণ করোনা রোগীদের সংস্পর্শে থেকেই তাদের সুস্থ করে তোলেন তারা। তাই ঝুঁকিও তাদের বেশি। নিজেরা জীবনের ঝুঁকি নিলেও পরিবারকে নিরাপদে রাখতে চান সবাই। তেমনেই একজন চিকিৎসক ভারতের শচীন নায়েক।

ভোপালের এই চিকিৎসক দিনরাত এক করে সেবা দিয়ে যাচ্ছেন করোনায় আক্রান্ত রোগীদের। নিজে ঝুঁকি নিলেও করোনা থেকে পরিবারের সুরক্ষায় ছাড় দিতে রাজি নন। তাই বাসায় না গিয়ে নিজের গাড়িকেই বানিয়েছেন আবাসস্থল। এমন খবর প্রকাশ করেছে ভারতের গণমাধ্যম সংবাদ প্রতিদিনি।

ওই প্রতিবেদনে বলা হয়, বাড়িতে স্ত্রী ও ছোট্ট সন্তান রয়েছে শচীনের। তার সংস্পর্শে আসলে যেকোনও মুহূর্তে তাদেরও শরীরে মারণ ভাইরাস বাসা বাঁধার সম্ভাবনা বেড়ে যায় বেশ খানিকটা। তাই সেই আশঙ্কায় হাসপাতালের কাজ শেষের পর বাড়িতে যাওয়াও ছেড়ে দিয়েছেন তিনি। এর পরিবর্তে হাসপাতালে সামনে দাঁড় করিয়ে রাখা ব্যক্তিগত গাড়িকেই বাড়ি বানিয়ে ফেলেছেন তিনি। গাড়িতে রয়েছে বইপত্র এবং তার প্রয়োজনীয় সামগ্রী। চিকিৎসার পর বাকি সময় ওই বই পড়েই কাটাচ্ছেন তিনি।

এই সময়ে ভিডিও কলের মাধ্যমেই পরিবারের সঙ্গে কথা হয় এই চিকিৎসকের। এ বিষয়ে শচীন বলেন, ‘করোনাভাইরাস সংক্রমণের সম্ভাবনা থেকে নিজের সন্তান ও স্ত্রীকে দূরে রাখতে চাই তাই এই সিদ্ধান্তা’

এর মধ্যেই এই চিকিৎসকের ছবি সোশ্যাল মিডিয়ায় ভাইরাল হয়ে গেছে। নজরে পড়েছে মধ্যপ্রদেশের মুখ্যমন্ত্রী শিবরাজ সিং চৌহানের। টুইট করে এই করোনা যোদ্ধাকে অভিবাদন জানান তিনি।

বাংলা/এনএস

আপনার মন্তব্য

Page rendered in: 0.0619 seconds.