• নিজস্ব প্রতিবেদক
  • ২৭ জুলাই ২০২০ ০০:২৫:১৯
  • ২৭ জুলাই ২০২০ ০০:২৫:১৯
অন্যকে জানাতে পারেন: Facebook Twitter Google+ LinkedIn Save to Facebook প্রিন্ট করুন
বিজ্ঞাপন

শ্রমিক কল্যাণে ৩০ কোটি টাকা দিলো গ্রামীণফোন

ছবি : সংগৃহীত

দেশব্যাপী চলমান কোভিড-১৯ পরিস্থিতিতেও শ্রমিকদের কল্যাণে ব্যয় করার জন্য বাংলাদেশ শ্রমিক কল্যাণ ফাউন্ডেশন তাহবিলে ২৯,৭৮,৭৫,৯৪১ (ঊনত্রিশ কোটি আটাত্তর লক্ষ পঁচাত্তর হাজার নয়শত একচল্লিশ টাকা মাত্র) টাকা দিয়েছে গ্রামীণফোন। সম্প্রতি সচিবালয়ে শ্রম ও কর্মসংস্থান মন্ত্রণালয়ের সচিব  কে. এম. আব্দুস সালাম এর হাতে গ্রামীণফোনের প্রধান মানব সম্পদ কর্মকর্তা (সিএইচআরও) সৈয়দ তানভীর হুসাইন এর নেতৃত্বে তিন সদস্যের প্রতিনিধি দল এ তহবিল হস্তান্তর করেন ।
 
গ্রামীণফোন তাদের লভ্যাংশের একটি নির্দিষ্ট অংশ বাংলাদেশ শ্রমিক কল্যাণ ফাউন্ডেশন তহবিলে নিয়মিতভাবে জমা প্রদান করে আসছে। এ তহবিলে সর্বোচ্চ জমাদানকারী প্রতিষ্ঠান হিসেবে, গ্রামীণফোন এখন পর্যন্ত ১৫১ কোটি ৬০ লক্ষ ৭৯ হাজার ৯৬০ টাকা জমা দিয়েছে।  
 
চেক প্রদান অনুষ্ঠানে শ্রম ও কর্মসংস্থান মন্ত্রণালয়ের সচিব কে এম আব্দুস সালাম বলেন, “শ্রমজীবী মেহনতি মানুষের কল্যাণের জন্য বাংলাদেশ শ্রম আইন অনুযায়ী সরকার ফাউন্ডেশন তহবিল গঠন করে। এ তহবিল থেকে প্রাতিষ্ঠানিক অপ্রাতিষ্ঠানিক খাতের শ্রমিকদের কর্মস্থলে দুর্ঘটনা জনিত মৃত্যুতে, আহত, দুরারোগ্য ব্যাধিতে আক্রান্ত শ্রমিকের চিকিৎসা এবং শ্রমিকের মেধাবী সন্তানের উচ্চ শিক্ষায় সহায়তা দেয়া হয়। করোনার এই দুর্যোগকালীন সময়ে এবছর প্রায় দুই হাজার শ্রমিককে এ তহবিল থেকে প্রায় সোয়া ছয় কোটি টাকা সহায়তা প্রদান করা হয়েছে। শ্রম ও কর্মসংস্থান প্রতিমন্ত্রী এবং বাংলাদেশ শ্রমিক কল্যাণ ফাউন্ডেশনের চেয়ারম্যান বেগম মন্নুজান সুফিয়ানের গতিশীল নেতৃত্বে শ্রমিক কল্যাণ ফাউন্ডেশন সব সময় শ্রমিকদের কল্যাণে পাশে থাকবে বলে তিনি উল্লেখ করেন”।

এ নিয়ে গ্রামীণফোনের প্রধান মানব সম্পদ কর্মকর্তা (সিএইচআরও) সৈয়দ তানভীর হুসাইন বলেন, 'চলমান কোভিড-১৯ সঙ্কটকালীন পরিস্থিতিতে আমাদের আর্থ-সামাজিক ক্ষেত্রে অনেক পরিবর্তন সাধিত হয়েছে। এ প্রতিকূল পরিস্থিতি মোকাবিলায়, বিভিন্ন খাতের প্রতিষ্ঠানকে প্রয়োজনীয় উদ্যোগ গ্রহণ করে জনগণের পাশে দাঁড়াতে হবে। চলমান সঙ্কটকালীন পরিস্থিতি মোকাবিলায় সহায়তা কার্যক্রম হিসেবে উন্নয়ন অংশীদার, সরকারি সংস্থা ও খাত সংশ্লিষ্ট বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানের সাথে যৌথ অংশীদারিত্বে জনগণকে জরুরি যোগাযোগ পরিষেবা সরবরাহ, সম্মুখসারির চিকিৎসাকর্মীদের এবং বিপন্ন জনগোষ্ঠীকে সহায়তা ও তরুণদের ক্ষমতায়নের জন্য নেয়া বিভিন্ন উদ্যোগের জন্য গ্রামীণফোনকে আমি সাধুবাদ জানাই। এ অভূতপূর্ব প্রতিকূল সময়ে, এ সহায়তা নিঃসন্দেহে দুর্দশাগ্রস্ত শ্রমিকদের সহায়তা করবে।'    
 
 

বিজ্ঞাপন

সংশ্লিষ্ট বিষয়

গ্রামীণফোন

আপনার মন্তব্য

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
Page rendered in: 0.0819 seconds.