• ক্রীড়া ডেস্ক
  • ১৪ সেপ্টেম্বর ২০২০ ২১:৪৯:৫৬
  • ১৪ সেপ্টেম্বর ২০২০ ২১:৪৯:৫৬
অন্যকে জানাতে পারেন: Facebook Twitter Google+ LinkedIn Save to Facebook প্রিন্ট করুন
বিজ্ঞাপন

পাপনের ‘ক্ষ্যাপা’ বক্তব্যের পর শ্রীলঙ্কার সুর নরম

ছবি : সংগৃহীত

শ্রীলঙ্কার ক্রিকেট বোর্ডের শর্ত মেনে দেশটিতে গিয়ে টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপ খেলা সম্ভব নয় বলে জানিয়েছিলেন বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ডের (বিসিবি) সভাপতি নাজমুল হাসান পাপন। এর কয়েক ঘণ্টা পরই সুর নরম শর্ত শিথিল করে বিসিবির সঙ্গে আলোচনার নির্দেশ দিয়েছেন দেশটির ক্রীড়ামন্ত্রী নমল রাজাপাকশে।

১৪ সেপ্টেম্বর, সোমবার মিরপুরে শ্রীলঙ্কা সফরের সার্বিক বিষয়ে করা সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিতি সংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে ওই মন্তব্য করেছিলেন বিসিবি সভাপতি পাপন। এর পরপরই শ্রীলঙ্কার ক্রীড়ামন্ত্রী নমল রাজাপাকশে এক টুইট বার্তায় এই তথ্য জানায়।

ওই টুইটে নমল রাজাপাকশে লিখেছেন, ‘যেহেতু আমরা জানি, করোনা মহামারীটি এখনো বিশ্বব্যাপী বৃহত্তর একটা ইস্যু, তাই প্রতিরোধ ব্যবস্থা অবশ্যই অগ্রাধিকার বেশি পাবে। তবে এই অঞ্চলে ক্রিকেটের তাৎপর্য বিবেচনা করে শ্রীলঙ্কা ক্রিকেটকে (এসএলসি) কোভিড টাস্ক ফোর্সের সাথে পরামর্শ করে বিসিবির বিষয়গুলো পুনর্বিবেচনা করতে বলেছি।’

এর আগে সংবাদ সম্মেলনে অনেকটা বিরক্তি প্রকাশ করে পাপন বলেন, শ্রীলঙ্কান ক্রিকেট বোর্ডের দেয়া শর্ত বা কন্ডিশনসমূহ পৃথিবীর ইতিহাসে বিরল। এমন অবস্থায় টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপও খেলা সম্ভব নয়।

বিভিন্ন দেশের খেলার উদাহরণ দিয়ে তিনি বলেন, অনেক দেশ স্বাস্থ্যবিধি মেনে খেলছে। করোনার মধ্যে সেসব দেশে যে প্রক্রিয়ায় খেলা হচ্ছে। সেটাও মানছে না লঙ্কান ক্রিকেট বোর্ড। শ্রীলঙ্কা সফর হোক বা না হোক, শিগগিরই ঘরোয়া ক্রিকেট লিগ শুরু হবে বলেও জানান এই বিসিবি সভাপতি।

পাপনের এমন সিদ্ধান্ত জানার কিছুক্ষণ পরই সুর নরম করে শ্রীলঙ্কার ক্রীড়ামন্ত্রী এসএলসিকে নির্দেশ দিয়েছেন শর্ত শিথিল করে আলোচনায় বসার জন্য।

শ্রীলঙ্কা সরকারের নিয়ম অনুযায়ী ১৪ দিন কোয়ারেন্টিনে থাকা বাধ্যতামূলক। কিন্তু বিসিবি চায় সর্বোচ্চ ৭ দিন কোয়ারেন্টিনে থাকার পর স্বাস্থ্যবিধি মেনে অনুশীলন শুরু করতে। এছাড়াও লঙ্কান সরকারের কঠিন নীতিমালার কারণে অনিশ্চয়তার মুখে পড়েছে এইচপি দলের সিরিজও।

এই সফরে আইসিসি টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপের তিনটি টেস্ট হওয়ার কথা রয়েছে। টাইগারদের ঢাকা ত্যাগ করার কথা রয়েছে এ মাসের শেষে। প্রথম টেস্ট শুরুর সম্ভাব্য তারিখ অক্টোবরের ২৪। আর বাংলাদেশ দলের ঢাকা ছাড়ার করার কথা রয়েছে ২৭ সেপ্টেম্বর।

বাংলা/এনএস

বিজ্ঞাপন

আপনার মন্তব্য

Page rendered in: 0.1190 seconds.