• নিজস্ব প্রতিবেদক
  • ১৮ অক্টোবর ২০২০ ২২:৩৯:৫৭
  • ১৮ অক্টোবর ২০২০ ২২:৩৯:৫৭
অন্যকে জানাতে পারেন: Facebook Twitter Google+ LinkedIn Save to Facebook প্রিন্ট করুন
বিজ্ঞাপন

১৮ অক্টোবরকে জাতীয় দিবস ঘোষণা করার দাবি পলকের

ছবি : সংগৃহীত

তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলক বলেছেন, শেখ রাসেল ছোট বয়স থেকেই তার প্রতিবেশী শিশুদের সাথে নিজের খাবার,  পোশাক ভাগ করে নিতে শিখেছিলেন। আজকের শিশুরা তার কাছ থেকে এসব অনুকরণীয় গুণাবলী গ্রহণ করতে পারে।  তার জন্মদিন ১৮ অক্টোবরকে আমরা জাতীয় দিবস ঘোষণা করার দাবি জানাই। 

রবিবার (১৮ অক্টোবর) সন্ধ্যায় জাতীয় সংসদ ভবনের দক্ষিণ প্লাজায় জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের কনিষ্ঠ পুত্র শেখ রাসেলের ৫৭তম জন্মদিন উপলক্ষে আয়োজিত চিত্রাঙ্গন প্রতিযোগিতায় sheikhraselfoundationusa.org ওয়েব সাইটের উদ্বোধন করার সময় তিনি এসব কথা বলেন। 

অনুষ্ঠানটি আয়োজন করেছে শেখ রাসেল ফাউন্ডেশন ইউএসএ (বাংলাদেশ শাখা)। সার্বিক সহযোগিতায় ছিলেন মুক্তিযুদ্ধের পক্ষের সংগঠন গৌরব’৭১।

আইসিটি প্রতিমন্ত্রী বলেন,  বঙ্গবন্ধু আমাদের রাজনৈতিক মুক্তি দিয়ে গেছেন,  তবে অর্থনৈতিক , সাংস্কৃতিক ও সামাজিক মুক্তির পথে উনাকে বাধা দেয় ৭৫ এর ঘাতক ও পরাজিত শক্তিরা। সেই দায়িত্ব বলিষ্ঠভাবে কাঁধে তুলে নিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।  তিনি শুধু আমাদের গণতান্ত্রিক মুক্তির নেত্রীই নন, সব ধরনের অধিকার আদায়ের আস্থার জায়গা। 

প্রতিমন্ত্রী  আরো বলেন,  সাম্প্রতিক সময়ে খুন ধর্ষনসহ যে সকল সামাজিক অপরাধ বৃদ্ধি পেয়েছে,  সেগুলো হতো না যদি আমরা আমাদের আজকের শিশুকে সঠিক সাংস্কৃতিক সভ্যতার শিক্ষা দিয়ে বড় করতে পারতাম। আজকের এই দিনে আমাদের প্রতিজ্ঞা হোক আগামীর শিশু হবে শেখ রাসেলের মতো,  বঙ্গবন্ধুর আদর্শের।  আর যেন এই বাংলায় আর কোন শিশুকে অকাতরে প্রাণ না দিতে হয়।  আর কোন নারীকে যেন নির্যাতিত হতে না হয় সেই উদ্যোগ আমাদেরই নিতে হবে। 

পলক বলেন,  গৌরব ৭১ সংগঠনটি তার নামের মাধ্যমেই তাদের লক্ষ্য বুঝিয়ে দিয়েছেন। তাদের মাধ্যমে আমাদের আগামীর প্রজন্ম ৭১ এর গৌরবগাঁথা সঠিক ইতিহাস জানবে, শেখ রাসেল সম্পর্কে জানবে, সোনার বাংলা গড়ায় ভূমিকা রাখবে এটাই আজকের  দিনে, আমার একমাত্র চাওয়া।

গৌরব ৭১ এর সভাপতি এসএম মনিরুল ইসলাম মনির সভাপতিত্বে এবং সংগঠনটির সাধারণ সম্পাদক এফএম শাহীনের সঞ্চালনায় অনুষ্ঠিত এ অনুষ্ঠানে আরো উপস্থিত ছিলেন আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মাহাবুবউল আলম হানিফ, যুব মহিলা লীগের সভাপতি নাজমা আক্তার, নাটোর জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি ও সাংসদ আব্দুল কুদ্দুস এমপি, বিচারপতি শামসুদ্দীন চৌধুরী মানিক, আওয়ামী যুব মহিলা লীগের সহ সভাপতি কুহেলি কুদ্দুস মুক্তি, আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় কার্যনির্বাহী কমিটির সদস্য ও সাবেক সাংসদ অ্যাডভোকেট সানজিদা খানম, জাতীয় সংসদ সদস্য ফেরদৌসী আক্তার, বিবার্তা২৪.ডটনেটের সম্পাদক বাণী ইয়াসমিন হাসিসহ প্রমুখ।

বিজ্ঞাপন

আপনার মন্তব্য

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
Page rendered in: 0.0855 seconds.