• নিজস্ব প্রতিবেদক
  • ০২ ফেব্রুয়ারি ২০২১ ০৯:৫০:০২
  • ০২ ফেব্রুয়ারি ২০২১ ০৯:৫০:০২
অন্যকে জানাতে পারেন: Facebook Twitter Google+ LinkedIn Save to Facebook প্রিন্ট করুন
বিজ্ঞাপন

যাকাতের অর্থ আত্মসাৎ : সাঈদীর বিরুদ্ধে মামলা বাতিলের আবেদন

ফাইল ছবি

যুদ্ধাপরাধে দণ্ডিত জামায়াতে ইসলামীর নায়েবে আমীর দেলাওয়ার হোসাইন সাঈদীর বিরুদ্ধে যাকাত তহবিলের অর্থ আত্মসাতের মামলায় অভিযোগ গঠন বাতিল চেয়ে হাইকোর্টে একটি রিভিশন আবেদন করা হয়েছে। গতকাল ১ ফেব্রুয়ারি, সোমবার  হাইকোর্টের সংশ্লিষ্ট শাখায় সাঈদীর পক্ষে  আইনজীবী মো. মুজাহিদুল ইসলাম শাহীন এ আবেদনটি দাখিল করেন।

আইনজীবী মুজাহিদুল ইসলাম শাহীন সাংবাদিকদের বলেন, ‘ইসলামিক ফাউন্ডেশনের (ইফার) জাকাতের অর্থ আত্মসাতের মামলায়  বিচারিক আদালতে সাঈদীর বিরুদ্ধে অভিযোগ গঠনের আদেশ বাতিল এবং অভিযোগ থেকে অব্যাহতি চেয়ে এ আবেদন করা হয়েছে। বিচারপতি এম. ইনায়েতুর রহিম ও মো. মোস্তাফিজুর রহমানের সমন্বয়ে গঠিত বেঞ্চে এই আবেদনের ওপর শুনানি হতে পারে।’

এর আগে গত ১১ জানুয়ারি রাজধানীর পুরান ঢাকার বকশীবাজারে স্থাপিত অস্থায়ী ঢাকার বিশেষ জজ আদালত-১ এর বিচারক সৈয়দা হোসনে আরা অভিযোগ গঠনের মাধ্যমে বিচার শুরুর আদেশ দেন। একইসঙ্গে, এ মামলায় সাক্ষ্যগ্রহণ শুরুর জন্য আগামী ১৭ ফেব্রুয়ারি দিন ধার্য করেন আদালত।

মামলায় দেলাওয়ার হোসাইন সাঈদীসহ মোট ছয়জন আসামি। অপর পাঁচ আসামি হলেন—ইসলামিক ফাউন্ডেশনের সাবেক পরিচালক মোহাম্মদ লুৎফুল হক, মসজিদ কাউন্সিল ফর কমিউনিটি অ্যাডভান্সমেন্টের সাবেক চেয়ারম্যান মাওলানা আবুল কালাম আজাদ, বন্ধুজন পরিষদের প্রধান সম্পাদক মিয়া মোহাম্মদ ইউনুস, ইসলামী সমাজ কল্যাণ কেন্দ্রের সাবেক সভাপতি তোফাজ্জল হোসেন ও ইসলামিক ফাউন্ডেশনের মসজিদ কাউন্সিলের সহকারী পরিচালক মো. আব্দুল হক।

ইসলামিক ফাউন্ডেশনের যাকাত তহবিলের অর্থ আত্মসাতের অভিযোগে সংস্থাটির সাবেক পরিচালক (অর্থ ও হিসাব) আইয়ুব আলী চৌধুরী ২০১০ সালের ২৪ মে শেরে বাংলা নগর থানায় এ মামলা দায়ের করেন।

মামলাটি তদন্ত করে দুর্নীতি দমন কমিশনের (দুদক) সহকারী পরিচালক ওয়াজেদ আলী গাজী ২০১২ সালের ৩০ এপ্রিল আদালতে অভিযোগপত্র দাখিল করেন। দেলাওয়ার হোসাইন সাঈদী মানবতাবিরোধী অপরাধের মামলায় আমৃত্যু কারাদণ্ডের আদেশ নিয়ে বর্তমানে করাগারে রয়েছেন।

মামলার নথি অনুযায়ী, জাকাতের ১ কোটি ২৭ লাখ ৫০ হাজার টাকা আত্মসাতের অভিযোগ এনে ২০১০ সালে ইসলামিক ফাউন্ডেশনের অর্থ ও হিসাব বিভাগের তৎকালীন পরিচালক আইয়ুব আলী চৌধুরী দেলাওয়ার হোসাইন সাঈদীসহ চারজনের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করেন। মামলাটি তদন্ত করে ২০১২ সালের ৩০ এপ্রিল দেলাওয়ার হোসাইন সাঈদীসহ সাতজনের বিরুদ্ধে দুদকের সহকারী পরিচালক ওয়াজেদ আলী গাজী আদালতে অভিযোগপত্র জমা দেন।

মানবতাবিরোধী অপরাধের মামলায় ২০১৮ খ্রিষ্টাব্দের ১৭ ফেব্রুয়ারি মাওলানা দেলাওয়ার হোসাইন সাঈদীকে আমৃত্যু কারাদণ্ড দিয়ে রায় ঘোষণা করেন সুপ্রিম কোর্টের আপিল বিভাগ। এর আগে ধর্মীয় অনুভূতিতে আঘাতের অভিযোগে ২০১০ খ্রিষ্টাব্দের ২৯ জুন সাঈদীকে গ্রেপ্তার করা হয়। পরে একই বছরের ২ আগস্ট মানবতাবিরোধী অপরাধের মামলায় তাকে গ্রেপ্তার দেখানো হয়। এর পর থেকে তিনি কারাগারেই আছেন।

বিজ্ঞাপন

আপনার মন্তব্য

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
Page rendered in: 0.0794 seconds.