• ১৪ এপ্রিল ২০২১ ১৩:০২:৪০
  • ১৪ এপ্রিল ২০২১ ১৩:০২:৪০
অন্যকে জানাতে পারেন: Facebook Twitter Google+ LinkedIn Save to Facebook প্রিন্ট করুন
বিজ্ঞাপন

সাতক্ষীরার শ্যামনগরে প্রেমের ঘটনাকে ঘিরে মন্দির ও বাড়িতে হামলা

সাতক্ষীরার শ্যামনগরে প্রেমের সম্পর্ক ফাঁস করার ঘটনাকে কেন্দ্র করে মন্দির ও বসত বাড়িতে হামলা চালিয়েছে দুর্বৃত্তরা।

সাতক্ষীরা প্রতিনিধি:

সাতক্ষীরার শ্যামনগরে প্রেমের সম্পর্ক ফাঁস করার ঘটনাকে কেন্দ্র করে মন্দির ও বসত বাড়িতে হামলা চালিয়েছে দুর্বৃত্তরা। উপজেলার মুন্সিগঞ্জ ফুলতলায় রাস মন্দির, শীতলা মন্দির এবং সুভাষ বাউলিয়া ও নগেন্দ্র বাউলিয়ার বাড়িতে মঙ্গলবার রাত ৮টার দিকে এ হামলার ঘটনা ঘটে।

দুর্বৃত্তদের হামলায় আহত হয়েছেন অন্তত ১২জন। হামলাকারীরা এসময় মন্দিরের তিনটি প্রতিমা ভাঙচুর করে এবং বাড়িতে লুটপাট চালায় বলে জানান প্রত্যক্ষদর্শীরা।

আহতরা হলেন, উত্তর কদম তলা গ্রামের মৃত ফনিন্দ্র বাউলিয়া পুত্র নগেন্দ্রনাথ বাউলিয়া (৭০), তপন বাউলিয়া (৬০), নগেন্দ্র নাথ বাউলিয়ার তিন পুত্র সুভাষ বাউলিয়া (৫০), যতিন বাউলিয়া (৪০), গোবিন্দ বাউলিয়া (৪৫), যতিন বাউলিয়ার স্ত্রী কৌশল্যা বাউলিয়া (৩৫), সুভাষ বাউলিয়ার স্ত্রী পূর্ণিমা বাউলিয়া(৪৫), কন্যা মমতা বাউলিয়া (১৮), পুত্র মিলন বাউলিয়া ( ১৯) যতিন্দ্র বাউলিয়া কন্যা বিজলী বাউলিয়া (১১), গোবিন্দ বাউলিয়া পুত্র নিত্যানন্দ বাউলিয়া (১৬)। আহতদের শ্যামনগর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

হামলার শিকার সুভাষ বাউলিয়ার স্ত্রী পূর্ণিমা বাউলিয়া বলেন, ‘প্রেম ঘটিত বিষয় নিয়ে উত্তর কদমতলা গ্যারেজ এলাকার শ্রীপদ মন্ডলের পু্ত্র পল্লব মন্ডল (১৯) এই ঘটনা ঘটায়।’

তিনি বলেন, ‘পল্লব মন্ডল এক মেয়েকে নিয়ে বিলের মধ্যে গল্প করছিলো সেই ঘটনা মিলন নামের এক ব্যক্তি বলে দেয়। এতে পল্লব ক্ষিপ্ত হয়ে ৭-৮ টি মোটরসাইকেলে লোকজন নিয়ে এসে রাতে আমাদের ওপর হামলা চালায়।
আমরা ভয়ে পালাই তখন আমাদের না পেয়ে দরজা ভেঙে আমাদের দুই মেয়েকে তুলে নিয়ে যাওয়ার জন্য হাত ধরে টেনে হিচড়ে  ঘরের বাইরে বের করতে থাকে,  তখন ছোট মেয়ে ভয়ে চিৎকার করলে ওর বাবা, কাকারা আর পালিয়ে থাকতে পারেনি। মেয়েদের বাঁচাতে তারা বাইরে বেরিয়ে আসে আর তখনই দুর্বৃত্তরা বৃষ্টির মতো ইট ছুঁড়ে মারতে থাকে। সাথে লাটিশোটা নিয়ে আমাদের সবাইকে বেধড়ক মারপিট করে এবং ঘরে থাকা টিভি, ল্যাপটপ, মোবাইল ফোন সাইকেলসহ সোনার গহনা সব নিয়ে যায়। তারা ঘরে আগুন জ্বালিয়ে দেয়, আর কিছু লোক তাদের তাড়া করে মন্দিরে নিয়ে গিয়ে প্রতিমা ভাংচুর করে। তাছাড়াও আমার মেয়ের নাকে কানের গলার সোনার গহনা নিয়ে যায়। ’

সাতক্ষীরা জেলা পরিষদের প্যানেল মেয়র ডালিম কুমার ঘরামী বলেন, ‘স্থানীয় এক কিশোরীর সঙ্গে প্রেমের ঘটনাকে কেন্দ্র করে মুন্সিগঞ্জ গ্যারেজ ও ঈশ্বরীপুরের একদল দুর্বৃত্ত ফুলতলা গ্রামের সুভাষ বাউলিয়া ও নগেন্দ্রনাথের বাড়ি ভাঙচুর করেছে।’

শ্যামনগর থানার অফিসার ইনচার্জ নাজমুল হুদা বলেন, ‘আমরা ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছি। খুব দ্রুতই এই ঘটনার সাথে জড়িত দের গ্রেপ্তার করা হবে।’

তিনি আরও বলেন, ‘স্থানীয় একটি মেয়ের সঙ্গে আরেক পাড়ার ছেলের প্রেমের ঘটনাকে কেন্দ্র করে হিন্দুদের বাড়িঘর ও মন্দিরে ভাঙচুরের ঘটনা ঘটেছে। হামলার খবর শোনার সঙ্গে সঙ্গে পুলিশ ঘটনাস্থলে আসে।’

বিজ্ঞাপন

সংশ্লিষ্ট বিষয়

সাতক্ষীরা

আপনার মন্তব্য

বিজ্ঞাপন
Page rendered in: 0.1106 seconds.