• বিদেশ ডেস্ক
  • ১১ মে ২০২২ ১৬:১৩:৪৪
  • ১১ মে ২০২২ ১৬:১৩:৪৪
অন্যকে জানাতে পারেন: Facebook Twitter Google+ LinkedIn Save to Facebook প্রিন্ট করুন
বিজ্ঞাপন

সাংবাদিকদের লক্ষ্য করে ইসরায়েলি সেনাদের গুলি, নিহত আজ-জাজিরার সাংবাদিক

ছবি : সংগৃহীত

দায়িত্ব পালনের সময় আলজাজিরার সাংবাদিক শিরিন আবু আকলেহকে গুলি করে হত্যা করেছে ইসরায়েলি বাহিনী। বুধবার সংবাদ সংগ্রহের সময় শিরিনকে লক্ষ্য করে গুলি করে বর্বর ইসরায়েলি সেনারা। প্রথম গুলিটি লাগে আলজাজিরার আরেক সাংবাদিক আলি সামুদির পিঠে এবং দ্বিতীয় গুলিটি করা হয় শিরিন আবু আকলেহকে। 

গুলিবিদ্ধ সাংবাদিকদের হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হলে চিকিৎসকরা শিরিন আবু আকলেহকে মৃত ঘোষনা করেন। তবে বেচে যায় আলি সামুদি।  তারা উভয়ই প্রেসভেল্ট এবং হেলমেট পড়া ছিলো। আশে পাশে কোন ফিলিস্তানি যোদ্ধাও ছিলো না। মূলত এই সাংবাদিকদের টার্গেট করেই গুলিটি করা হয়। ইসরায়েলি সেনারা তার মাথায় গুলি করে হত্যা করে।  

হাসপাতাল থেকে আহত সাংবাদিক আবু সামুদি বলেন, ‘সংবাদ সংগ্রহের উদ্দেশ্যেই আমরা ইসরায়েলি সেনাবাহিনীর অভিযানের কভার করতে যাচ্ছিলাম। এসময় হঠাৎ করেই কোন ধরনের সর্তকতা বা নির্দেশনা ছাড়াই তারা গুলি করলো। প্রথম বুলেটটি আমাকে আঘাত করেছিল এবং দ্বিতীয় বুলেটটি শিরিনকে আঘাত করেছিল। এসময় ঘটনাস্থলে ফিলিস্তিনিদের কোনো সামরিক প্রতিরোধ ছিল না।’

ঘটনাস্থলে উপস্থিত থাকা ফিলিস্তানের সাংবাদিক শাথা হানাইশা ঘটনার বর্ননা দিতে গিয়ে আল জাজিরাকে বলেন, আশে পাশে কোন ফিলিস্তানি নাগরিক কিংবা যোদ্ধারা ছিলো না। কোন সামরিক প্রতিরোধও ছিলো না। ইজরায়েলি সেনারা সরাসরি সাংবাদিকদের উদ্দেশ্য করেই গুলি চালিয়েছিলো।

তিনি আরও বলেন, সেই সময় আমরা চারজন সাংবাদিক উপস্থিত ছিলাম, সবাই প্রেসভেস্ট পরা ছিলাম। তারপরও গুলি চালায়। গুলিতে পরে যাওয়ার পরও থামেনি দখলদার ইসরায়েলিরা। তাদের গুলির কারনে হাতটাও বাড়াতে পারিনি তার (শিরিন) দিকে।  ওরা মূলত হত্যার উদ্দেশ্যেই গুলি চালিয়েছিলো।

আলজাজিরার প্রতিনিধি নিদা ইব্রাহিম বলেন, “আমরা এখন যা জানি তা হল ফিলিস্তিনের স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় তার মৃত্যুর ঘোষণা দিয়েছে। শিরিন আবু আকলেহ, ফিলিস্তানের জেনিনে ঘটে যাওয়া ঘটনাগুলি কভার করছিলেন, বিশেষ করে দখলকৃত পশ্চিম তীরের উত্তরে অবস্থিত শহরটিতে একটি ইসরায়েলি অভিযান কভার করছিলো।

শিরিন আবু আকলেহ সর্বশেষ সংবাদ পাঠিয়েছিলো ভোর ৬টা ১৩ মিনিটে। তিনি ইমেইলে লিখেছিলেন, ‘ইসরায়েলি দখলদার বাহিনী জেনিনে আক্রমন করে এবং জাবিয়াত পাড়ায় একটি বাড়ি ঘিরে রেখেছে। আমি ওই পথেই আছি। পরিস্কার ছবি পেলেই পাঠাবো। 

ফিলিস্তিনি-আমেরিকার যৌথ নাগরিক আবু আকলেহ  আজ জাজিরার একজন পরিচিত ও শ্রদ্ধাভাজন সাংবাদিক ছিলেন। তিনি ছিলেন আল জাজিরার প্রথম দিকের মাঠ পর্যায়ের সংবাদদাতাদের একজন, যিনি ১৯৯৭ সালে আলজাজিরায় যোগদান করেছিলেন।

ফিলিস্তিনের প্রেসিডেন্ট মাহমুদ আব্বাসের দল ফাতাহ আবু আকলেহের হত্যার নিন্দা করেছে।

সংশ্লিষ্ট বিষয়

সাংবাদিক আজ-জাজিরা

বিজ্ঞাপন

আপনার মন্তব্য

বিজ্ঞাপন
Page rendered in: 0.3730 seconds.