• ক্রীড়া ডেস্ক
  • ০৯ ডিসেম্বর ২০২২ ২০:২৪:৪৯
  • ০৯ ডিসেম্বর ২০২২ ২০:২৪:৪৯
অন্যকে জানাতে পারেন: Facebook Twitter Google+ LinkedIn Save to Facebook প্রিন্ট করুন
বিজ্ঞাপন

আবরার-বাবরে প্রথম দিনটি পাকিস্তানের

দিনশেষে ৬১ রানে অপরাজিত থেকে মাঠ ছাড়েন বাবর আজম। ছবি: সংগৃহীত

 

টেস্ট ক্রিকেটের রীতি বদলের চেষ্টায় ইংল্যান্ড। সেটিতে সফল হলেও আজ বেশীদূর এগুতে পারেনি দলটি। অভিষিক্ত আবরারের ৭ উইকেটে ২৮১ রানে অলআউট হন দলটি। জবাবে খেলতে নেমে বাবর আজমের ফিফটিতে চালকের আসনে পাকিস্তান।

মুলতানে আজ শুক্রবার (৯ ডিসেম্বর) টস জিতে ব্যাটিংয়ের সিদ্ধান্ত নেন ইংল্যান্ড। পাকিস্তানের জার্সিতে অভিষেক হয় আবরার আহমেদের। ইংল্যান্ডের টেস্ট একাদশে ৮ মাস পর ফেরেন মার্ক উড। টস জিতে ব্যাটিংয়ে নেমে শুরুটা ভালো না হলেও বেন ডাকেট ও ওলি পোপের ঝড়ো ব্যাটিংয়ে ঘুরে দাঁড়ায় ইংল্যান্ড। কিন্তু অভিষিক্ত আবরার আহমেদের স্পিন ঘূর্ণিতে নিয়মিত বিরতিতে উইকেট হারাতে থাকে ইংল্যান্ড। লাঞ্চ বিরতির আগে সংগ্রহ করে ৫ উইকেটে ১৮০ রান। এতেই ১২০ বছরের রেকর্ড ভেঙে প্রথম দিনের লাঞ্চের আগে সর্বোচ্চ রান তোলার রেকর্ড গড়ে ইংল্যান্ড।

লাঞ্চ বিরতির পর সুবিধা করতে পারেননি স্টোকস - উইল জ্যাকসরা। ইংল্যান্ডের প্রথম সাত ব্যাটারকেই আউট করেন আবরার। এতেই ১০ উইকেট শিকারের সম্ভাবনা জাগায়। কিন্তু জাহিদ মাহমুদের কারণে সেটি সম্ভব হয়নি। শেষ পর্যন্ত আবরারের ৭ ও জাহিদের ৩ উইকেটে ২৮১ রানে অলআউট হয় ইংল্যান্ড।

ইংল্যান্ডের ২৮১ রানকে সামনে রেখে ব্যাটিংয়ে আসেন আব্দুল্লাহ শফিক ও ইমাম-উল হক। ঘরের মাঠে শুরুটা ভালো হয়নি পাকিস্তানের। দলীয় তৃতীয় ওভারেই এন্ডারসনের বলে ওলি পোপের হাতে ক্যাচ দিয়ে ফিরেন ইমাম-উল হক। এরপর দ্রুত ফিরে যান আব্দুল্লাহ শফিকও। দলীয় ৫১ রানে ২ উইকেট হারালেও দারুণ জুটি গড়েন অধিনায়ক বাবর আজম ও সাকিল। দিনশেষে ফিফটি তুলে নেন বাবর আজম। সাকিলও খেলতে থাকেন সাবধানে। দিনশেষে পাকিস্তানের সংগ্রহ ২ উইকেটে ১০৭ রান। বাবর আজম ৬১ ও সাকিল ৩২ রানে অপরাজিত থেকে মাঠ ছাড়েন। দিনশেষে পাকিস্তান ১৭৪ রানে পিছিয়ে।

সংক্ষিপ্ত স্কোর:

ইংল্যান্ড ২৮১/১০(৫১.৪ ওভার)
ডাকেট ৬৩, পোপ ৬০, উড ৩৬*
আবরার ১১৪/৭, জাহিদ ৬৩/৩

পাকিস্তান ১০৭/২(২৮ ওভার)
বাবর আজম ৬১*, সাকিল ৩২*
এন্ডারসন ৪/১, লিচ ৪৪/১

প্রথম দিন শেষে ইংল্যান্ড ১৭৪ রানে এগিয়ে।

বিজ্ঞাপন

আপনার মন্তব্য

বিজ্ঞাপন
বিজ্ঞাপন
Page rendered in: 0.1550 seconds.